উপকরণ :

১. ১ কাপ ময়দা,

২. ২ টেবিল চামচ তেল,

৩. ৩/৪ কাপ ঠান্ডা পানি,

৪. ৩ টেবিল চামচ গরম দুধ,

৫. ২ টেবিল চামচ ঘি/ মাখন,

৬. ১ কাপ নারিকেলের গুঁড়া,

৭. ১/৪ কাপ কিশমিশ,

৮. ১/২ কাপ বাদাম,

৯. ১ কাপ চিনি,

১০. তেল,
১১. ১-১/২ কাপ চিনি ( শিরার জন্য ),

১২. ১ কাপ পানি।

প্রণালী :
> প্রথমে ময়দা এবং তেল খুব ভাল করে মেশান।

এরপর এতে ঠান্ডা পানি দিয়ে ডো তৈরি করে নিন। ডোটি ভেজা কাপড় দিয়ে কিছুক্ষণ ঢেকে রাখুন।

> এবার তরল দুধ এবং ঘি বা মাখন ভাল করে মিশিয়ে নিন।

এই মিশ্রণটি গুঁড়া দুধের সাথে ভাল করে মেশান।

> এরপর গুঁড়া দুধের মিশ্রণটিতে বাদাম, নারিকেলের গুঁড়া, কিশমিশ , চিনি দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিন।

> ডো থেকে ছোট একটি অংশ নিন এবং সেটি রুটির মত করে বেলুন।

নারিকেল পুলি পিঠা তৈরি করার ছাঁচে রুটিটি দিয়ে ভিতরে পুর দিয়ে মুখ বন্ধ করে ফেলুন।

> যদি পিঠার ছাঁচ না থাকে তবে রুটি নিয়ে এর ভিতরে পুর দিয়ে দিন।

তারপর রুটির মুখটি বন্ধ করুন।

> একটি কাঁটা চামচের উল্টো পিঠ দিয়ে বন্ধ করা রুটির মুখে চাপ দিন।

দেখবেন পিঠার ছাঁচের মত নকশা হয়ে গেছে।

> এবার গুজিয়াগুলো মাঝারি আঁচে তেলে ভাজুন।

আরেকটি পাত্রে চিনি পানি দিয়ে শিরা তৈরি করে নিন। ভাজা গুজিয়াগুলো চিনির শিরায় দিয়ে দিন।

> খুব বেশিক্ষণ শিরায় রাখবেন না। চিনির হালকা প্রলেপ পড়লে পাতিল থেকে গুজিয়া গুলো নামিয়ে ফেলুন।

> এবার গুজিয়ার ওপরে নারকেল কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার গুজিয়া