মজার রান্না ডেস্ক: দোকানে তৈরি করা কেকগুলোতে বিভিন্ন এসেন্স মিশ্রিত থাকে বলে হয়ত ডিমের উপস্থিতি তেমন টের পাওয়া যায় না। কিন্তু বাসায় বানানো কেক এ ডিম যেন চিৎকার করে তার উপস্থিতি জানান দেয়। ফলে ডিম খেতে পছন্দ না করা মানুষগুলো সযত্নে এড়িয়ে যান বাসায় বানানো কেক। যারা শুধুমাত্র ডিমের জন্য কেক খেতে পারছেন না এবং বাড়িতেই বানাতে চান স্বাস্থ্যসম্মত কেক তাদের জন্যেই আমাদের আজকের এই আয়োজন।

মনে রাখা ভালো-ডিম ছাড়া কেক তৈরি করতে অন্যান্য কেকের তুলনায় একটু বেশি সময় লাগে।কলা, দই, আপেল সস এগুলো ডিমের খুব ভালো পরিপূরক হিসেবে কাজ করে।ডিম ছাড়া কেক স্বাদে মজাদার করা সম্ভব।এই ধরনের কেক খুব অল্প আঁচে বেক করতে হয়।

১. চকলেট কেক–

উপকরণ–দেড় কাপ ময়দা,১ কাপ চিনি,আধা কাপ কোকোয়া পাউডার,৪ টেবিল চামচ বেকিং পাউডার,দেড় কাপ সয়া মিল্ক বা তরল দুধ,আড়াই টেবিল চামচ ভেজিটেবল তেল,আইসিং সুগার,

প্রস্তুত প্রণালী–ওভেন ১৬০ ডিগ্রি সেলসিয়াস বা ৩২০ ডিগ্রি ফারেনহাইট তাপে গরম করে নিন।বড় বাটিতে ময়দা, চিনি, কোকোয়া পাউডার এবং বেকিং পাউডার মিশিয়ে নিন।আলাদা একটি বাটিতে দুধ, তেল এবং তাতে ভ্যানিলা এসেন্স (ঐচ্ছিক) মেশান।দুটি বাটির উপকরণ এক করে ভালোমতন ফেটে নিন।একটি ময়দা প্যানে ময়দা ছিটিয়ে বা তেল ব্রাশ করে তাতে কেকের মিশ্রণ ঢেলে দিন।ওভেনে ৪০ মিনিট বেক করুন।ঠাণ্ডা হয়ে গেলে আইসিং সুগার দিয়ে উপরে ফ্রস্টিং করুন।

২. ভ্যানিলা কেক–

উপকরণ–আড়াই কাপ ময়দা,২ টেবিল চামচ চিনি,২ চা চামচ বেকিং সোডা,,১ চা চামচ বেকিং পাউডার,১ কৌটা কনডেন্সড মিল্ক,১ কাপ পানি,২ টেবিল চামচ ভিনেগার,২ টেবিল চামচ ভ্যানিলা এসেন্স,আধা কাপ মাখন (গলানো),

প্রস্তুত প্রণালী–ওভেন ৩৫০ ফারেনহাইট বা ১৮০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপে গরম করে নিন।বড় একটি পাত্রে ময়দা, বেকিং পাউডার, বেকিং সোডা এবং চিনি মেশান।মিশ্রণের পাত্রের মাঝে চামচ দিয়ে গোল জায়গা করে নিন। ওই ফাঁকা অংশে বাকি উপাদানগুলো এক এক করে মিশিয়ে ভালো করে ফেটে নিন।একটি প্যানে মাখন ব্রাশ করে নিন।কেকের মিশ্রণ প্যানে ছড়িয়ে দিন এবং ২৫/৩০ মিনিট বেক করুন।কিছু টিপস–পানির বদলে কমলার রস ব্যবহার করে কেকে ভিন্ন স্বাদ আনতে পারেনকনডেন্সড মিল্কের পরিমাণ ৪০০ মি.লি হলেই কেক এ একদম সঠিক পরিমাণে মিষ্টতা পাবেন।

৩. রেড ভেলভেট কেক–

উপকরণ–১ কাপ ননীবিহীন দুধ,,১ টেবিল চামচ ভিনেগার,সোয়া এক কাপ ময়দা,১ কাপ চিনি,২ টেবিল চামচ কোকোয়া পাউডার,আধা চা চামচ বেকিং পাউডার,আধা চা চামচ বেকিং সোডা,আধা চা চামচ লবণ,আধা কাপ তেল,২ টেবিল চামচ ফুড কালার (লাল),২ টেবিল চামচ ভ্যানিলা এসেন্স/সুগন্ধি,আধা চা চামচ অ্যালমণ্ড এসেন্স/সুগন্ধি,

প্রস্তুত প্রণালী–ওভেন ৩৫০ ডিগ্রি ফারেনহাইট তাপে গরম করে নিন।মাঝারি আকারের পাত্রে দুধ এবং ভিনেগার মিশিয়ে ৫ মিনিট রেখে দিন।অন্য আরেকটি পাত্রে ময়দা, কোকোয়া পাউডার, বেকিং পাউডার, বেকিং সোডা, চিনি এবং লবণ মেশান।৫ মিনিট পর বাটিতে দুধ এবং ভিনেগারের মিশ্রণে তেল, ফুড কালার এবং সুগন্ধি যোগ করুন।দুটি পাত্রের মিশ্রণ একত্রে মেশান। লক্ষ্য রাখুন যেন খুব বেশি মিশে না যায়। এতে কেক ভালোভাবে ফুলে উঠবে।ছোট ছোট মাফিনের প্যানে মিশ্রণ ঢেলে দিন এবং ১৫/২০ মিনিট বেক করুন।

৪. ব্লুবেরি কেক—

উপকরণ–আধা কাপ মাখন (গলানো),এক কাপ চিনি,আধা কাপ দই,আধা কাপ দুধ,১ চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স,আড়াই কাপ ময়দা,২ টেবিল চামচ বেকিং পাউডার,১ টেবিল চামচ বেকিং সোডা,এক চিমটি লবণ,২ কাপ ব্লুবেরি,

প্রস্তুত প্রণালী–১৮০ ডিগ্রি তাপমাত্রায় ওভেন গরম করে নিন।দই, দুধ, ভ্যানিলা এসেন্স একত্রে মেশান।আরেকটি পাত্রে শুকনো উপাদানগুলো মিশিয়ে নিন।মাখন এবং চিনি একটি ছোট পাত্রে নিয়ে কাঠের চামচ দিয়ে খুব ভালোমত ফেটে নিন যতক্ষণ পর্যন্ত এটি ফোমের মত হয়।এখন প্রতিটি আলাদা পাত্রের উপকরণ একত্রে মেশান।ব্লুবেরি ঢেলে দিন।এবার কেক তৈরি করার প্যানে হালকা করে মাখন ব্রাশ করে নিন এবং মিশ্রণটি ঢেলে দিন।৬০/৭০ মিনিট বেক করুন২০/২৫ মিনিট ফ্রিজে রেখে ঠাণ্ডা করুন।কিছু টিপস–ব্লুবেরি ফ্রিজে রেখে জমিয়ে নিলে ভালো হয়, এতে করে তাপে গলে যাবে না।একই রেসিপি দিয়ে স্ট্রবেরি এবং রাস্পবেরি কেকও তৈরি করা যায়।

৫. গাজরের কেক–

উপকরণ–২ কাপ গমের ময়দা,১ টেবিল চামচ বেকিং পাউডার,১ টেবিল চামব বেকিং সোডা,এক চিমটি লবণ,সোয়া এক কাপ পানি,সোয়া এক কাপ কুচি করে কাটা খেজুর,এক কাপ কিসমিস,এক কাপ কুচানো গাজর,আধা কাপ গাজরের রস,এক কাপ বাদাম কুচি,পরিমাণমত পানি,

প্রস্তুত প্রণালী–১৯০ ডিগ্রি তাপে ওভেনে গরম করে নিন।ময়দা, বেকিং সোডা, বেকিং পাউডার এবং লবণ একটি পাত্রে মেশান।একটি কড়াই বা সসপ্যানে খেজুর এবং কিসমিস সামান্য পানিতে ৫ মিনিট সেদ্ধ হতে দিন।একটি পাত্রে গাজর কুচি নিন। সেদ্ধ করা খেজুর, কিসমিস এবং পানিটুকু ওই পাত্রে ঢেলে দিন। ঠাণ্ডা হতে দিন।ঠাণ্ডা হয়ে গেলে বাদাম কুচি এবং গাজরের রস মেশান।শুকনো উপকরণগুলো এই পাত্রে মিশিয়ে নিন।কেকের প্যানে মাখন বা তেল ব্রাশ করে এই মিশ্রণটি ঢেলে দিন এবং ৪০/৪৫ মিনিট বেক করুন।ওভেন থেকে বের করে স্বাভাবিক তাপমাত্রায় ২০ মিনিট ঠাণ্ডা হতে দিন।

নোট–উপরোক্ত প্রণালীতে ১০-১২ জনের জন্য কেক বানানো যাবে। কম বা বেশি মানুষের জন্য উপকরণ সমানভাবে কমিয়ে দিলেই একই স্বাদে প্রয়োজনমত কেক তৈরই হবে। তবে তাপমাত্রা কমানোর প্রয়োজন নেই।ফ্রস্টিং তৈরি করার জন্য আইসিং সুগারের অর্ধেক পরিমাণ পানি একসাথে মেশালেই ঘন মিশ্রণ পাওয়া যাবে। বিভিন্ন ফুড কালার মিশিয়ে ফ্রস্টিং ভিন্নতা আনা যায়।ভ্যানিলা বা অন্য এসেন্স কেকের কোন উপাদান নয়। বরং সুন্দর সুগন্ধ তৈরিতে এসব এসেন্স ব্যবহার করা হয়।পাত্রের আকার ছোট হলে তাপমাত্রা বেশি প্রয়োজন হয়। ছড়ানো পাত্রে কম আঁচেই কেক তৈরি করা সম্ভব

সূত্র: roar বাংলা