মজাদার আলু মটর সমুচা - Mojar Ranna মজাদার আলু মটর সমুচা - Mojar Ranna

মজাদার আলু মটর সমুচা

;
  • প্রকাশিত: ২৭ মে ২০১৮, ২:০২ অপরাহ্ণ | আপডেট: ৫ বছর আগে

মজার রান্না ডেস্ক: বিকালের নাস্তায় চা কিংবা কফির সাথে সমুচা তো আমরা সবাই খেয়ে থাকি। আর খাবো নাই বা কেন? আমাদের দেশের অলিতে গলিতে প্রায় সব চায়ের দোকানেই চায়ের সাথে সমুচা আর সিঙ্গারা বিক্রি করা হয়ে থাকে। তবে এই সমুচা শুধু চা কিংবা কফির সাথেই নয়, ইফতারের টেবিলেও অনেক মজার একটা খাবার হতে পারে। আর এই সমুচা যদি একটু ভিন্ন ভাবে বানানো হয় তাহলে তো কথাই নেই। সারা দিনের কষ্টকর রোজার শেষে ইফতার একদম জমে যাবে। চলুন আজ তাহলে একটু ভিন্ন ধরনের সমুচা বানানো শিখে নেই। এই সমুচাটি হচ্ছে মজাদার আলু মটর সমুচা।

উপকরণ:
স্প্রিং রোল শিট ১০টি
মৌরি ২ চা চামচ
মিহি করে কুচি করে রাখা পেঁয়াজ ২ টেবিল চামচ
পেঁয়াজ বাটা ১ চা চামচ
আদা বাটা ১ চা চামচ
রসুন বাটা ১ চা চামচ
হলুদ গুড়া ১/২ চা চামচ
লাল মরিচ গুড়া ১ চা চামচ
ভাজা জিরা গুড়া ১ চা চামচ
ভাজা ধনে গুড়া ১ চা চামচ
ভাজা গরম মহলা গুড়া ১ চা চামচ
আলু ১টি বড় সাইজের
মটরশুটি ১/২ কাপ
লবণ পরিমাণ মত
মিহি করে কুচি করে রাখা ধনে পাতা ২ চা চামচ
সয়াবিন তেল ২ টেবিল চামচ + ডুবো তেলে ভাজার জন্য
ময়দা ১/৪ কাপ
পানি অল্প পরিমাণ

প্রণালী:

আলু মটরশুটির পুর যেভাবে বানাতে হবে:
১ম ধাপ
প্রথমেই আলু ও মটরশুটি সিদ্ধ করে নিতে হবে আলাদা আলাদা করে।

এগুলো সিদ্ধ হয়ে গেলে একটা ঝাঝরিতে পানি ঝরাতে দিতে হবে।

আলু আর মটরশুটি একটু ঠান্ডা হয়ে গেলে একটা প্লেটে তুলে নিতে হবে।

হাত দিয়ে এই দুটি জিনিসই একটু ম্যাশ মত করে নিতে হবে।

একেবারে পুরোপুরি ভর্তা করে ফেলা যাবে না।

হালকা ম্যাশ করতে হবে যেন সমুচা খাওয়ার সময় অল্প অল্প মটরশুটি ও আলুর টুকরা গালে বাধে।

২য় ধাপ
এবার একটা ফ্রাইং প্যান নিতে হবে।

ফ্রাইং প্যানে ২ টেবিল চামচ সয়াবিন তে গরম করতে দিতে হবে।

সয়াবিন তেল গরম হয়ে গেলে এতে মৌরি ফোড়ন দিতে হবে।

মৌরি ফুতে উঠলে দেখবেন তা থেকে খুব সুন্দর একটা ফোড়নের গন্ধ বের হবে।

তখন সাদা তেলের মধ্যে মিহি করে কুচি করে রাখা পেঁয়াজ দিয়ে দিতে হবে।

লাল লা করে পেঁয়াজ কুচি ভাজতে থাকতে হবে।

পেঁয়াজ কুচি যখন ভাজা ভাজা হয়ে গোল্ডেন ব্রাউন কালার হয়ে যাবে তখন এর মধ্যে পেঁয়াজ বাটা দিয়ে দিতে হবে।

একই সাথে আদা বাটা ও রসুন বাটাও দিয়ে দিতে হবে।

খুব ভাল করে সব মশলা এক সাথে মিশিয়ে নিতে হবে।

সুন্দর করে কষাতে হবে।

প্রয়োজন হলে অল্প অল্প করে সামান্য পানি যোগ করা যেতে পারে।

মশলা গুলো যখন কষে তেল উপরে উঠে আসবে তখন গুড়া মশলা গুলো একে একে দিয়ে দিতে হবে।

প্রথমে হলুদ গুড়া আর লাল মরিচ গুড়া দিতে হবে।

এরপর ভাজা জিরা গুড়া ও ভাজা ধনে গুড়া দিতে হবে।

খুনতি দিয়ে নেড়ে চেড়ে খুব ভাল মত সব উপকরণ মিশিয়ে নিতে হবে।

ভাল মত সব মশলা কষানো হয়ে গেলে আগে থেকে সিদ্ধ করে হাফ ম্যাশ করা আলু দিয়ে দিতে হবে।

সেই সাথে সিদ্ধ করে হাফ ম্যাশ করা মটরশুটিও দিয়ে দিতে হবে।

খুব ভাল করে সব মশলার সাথে সিদ্ধ করা আলু ও মটর মিশিয়ে নিতে হবে।

এই বার লবণ ও সামান্য চিনি যোগ করতে হবে।

ভাল ভাবে আলু ও মটরের সাথে মিশিয়ে নিতে হবে।

প্রায় পাঁচ থেকে সাত ইনিট সব মশলার সাথে এই আলু ও মটর ভাজা ভাজা করতে হবে।

এরপর উপর থেকে ভাজা গরম মশলা গুড়া ও মিহি করে কুচি করে রাখা ধনে পাতা ছড়ীয়ে দিতে হবে।

ভাল করে মিশিয়ে চুলা বন্ধ করে দিতে হবে।

রেডি আলু মটর পুর আলু মট্র সমুচা বানাবার জন্য।

সমুচা বানাবার পদ্ধতি
১ম ধাপ
একতা বাটিতে ময়দা নিতে হবে।

এর মধ্যে অল্প অল্প করে পানি দিয়ে একটা গোলা বানাতে হবে।

বেশ ঘন একটা গোলা বানিয়ে রেডি করে রাখতে হবে।

খুব বেশি ময়দার গোলা বানাবার দরকার নেই।

এটি শুধু স্প্রিং রোল শিট জোড়া দেবার কাজে আসবে।

২য় ধাপ
একটা একটা করে স্প্রিং রোল শিট নিতে হবে।

প্রত্যেকটি শিট লম্বালম্বি দুই ভাগ করে ছুরি দিয়ে কেটে নিতে হবে।

এরপর এক পিস স্প্রিং রোল শিট নিতে হবে।

এর এক মাথায় এক টেবিল চামচ পরিমাণ রেডি করে রাখা আলু মটর পুর দিতে হবে।

আগে থেকে রেডি করে রাখা ময়দার গোলা স্প্রিং রোল শিটের চারপাশে লাগিয়ে নিতে হবে।

এরপর সমুচার মত করে তিন কোণা করে এটি ভাজ করে নিতে হবে।

এই ভাবে সব কটি সমুচা রেডি করে নিতে হবে ভাজার আগে।

৩য় ধাপ
একটা বড় কড়াতে সয়াবিন তেল গরম করতে দিতে হবে।

সয়াবিন তেল মোটামুটি গরম হয়ে গেলে রেডি করে রাখা সমুচা গুলো তাতে ছেড়ে দিতে হবে।

মোটামুটি তিন মিনিট মত ভাজতে হবে।

এরপর সমুচা গুলো উলটে দিতে হবে।

সমুচা গুলো উলটে দেবার পর আরো দুই থেকে তিন মিনিট ভাজতে হবে।

চুলার জ্বাল এ সময় মোটামুটি মিডিয়াম থাকতে হবে।

আলু মটর সমুচা গুলো গোল্ডেন ব্রাউন করে ভাজা হয়ে গেলে তেল থেকে তুলে একটা প্লেটে টিস্যু পেপারের উপর রাখতে হবে।

যেকোন ডুবো তেলে ভাজা খাবার তেল থেকে তুলে প্রথমে একটা টিশ্যু পেপারের উপর রাখা উচিত।

এতে করে টিশ্যু পেপার সমুচা থেকে বাড়তি তল শুষে নেবে।

এরপর একটা সার্ভিং ডিশে সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে মজাদার আলু মটর সমুচা।

সূত্র: চটপট.কম

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...

পোর্টাল বাস্তবায়নে : আয়ান আইটি